বাংলাদেশকে আরো ‘তেল’ দিতে চায় ভারত

অর্থ-বাণিজ্য ডেস্ক,বর্তমানকণ্ঠ ডটকম,বৃহস্পতিবার,১৮ জানুয়ারী ২০১৮: বাংলাদেশের কাছে আরো তেল বিক্রি করতে সরকারের সঙ্গে আলোচনা করছে ভারতের সবচেয়ে বড় তেল শোধনাগার প্রতিষ্ঠান ইন্ডিয়ান অয়েল কোর। মিয়ানমারের সঙ্গেও পেট্রোলিয়াম বাণিজ্য বাড়াতে চায় দেশটি।

ভারতীয় গণমাধ্যম ইকনোমিক টাইমস এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে, এই দুই দেশে তেলের অবকাঠামো নির্মাণেও সহায়তার প্রস্তাব দিয়েছে ইন্ডিয়ান অয়েল কোর।

এতে আরো বলা হয়েছে, চলতি মাসেই বাংলাদেশ ও মিয়ানমারে কার্যালয় খুলতে যাচ্ছে প্রতিষ্ঠানটি। এই দুই দেশের সঙ্গে বাণিজ্য বাড়াতেই এই উদ্যোগ নেয়া হয়েছে।

এ বিষয়ে ইন্ডিয়ান অয়েল কোরের চেয়ারম্যান সঞ্জিব সিং বলেন, ‘প্রতিবেশী দেশগুলোতে আমরা শুধু বাণিজ্যই বাড়াতে চাই না। এর বাইরে সহযোগিতাও বাড়াতে চাই। কারণ এই দেশগুলো সেসব সমস্যা মোকাবেলা করছে, যা আমরা অতীতে করেছি। তাদের সঙ্গে নিজেদের অভিজ্ঞতা ভাগাভাগি করতে পারলে আমরা খুশি হবো।’

প্রথম মাসে শুরুতেই পেট্রোলিয়াম রপ্তানির ব্যাপারে বাংলাদেশ ও মিয়ানমারের সঙ্গে চুক্তি করবে ইন্ডিয়ান অয়েল। বাংলাদেশ হয়ে ভারতের উত্তর-পূর্বাঞ্চলীয় সাত রাজ্য আসাম, মনিপুর, ত্রিপুরা, মেঘালয়, নাগাল্যান্ড, অরুণাচল, মিজোরামে গ্যাস পাঠানোর পরিকল্পনাও করছে ভারত।

বাংলাদেশ ও মিয়ানমারে পেট্রোল, ডিজেল ও অন্যান্য জ্বালানি পণ্য সরবরাহের কথা ভাবছে ইন্ডিয়ান অয়েল। সম্প্রতি মিয়ানমারে কার্গোভর্তি ডিজেল বিক্রি করেছে প্রতিষ্ঠানটি। সঞ্জিব সিং বলেন, ‘পারাদ্বীপের চেয়ে কম মূল্যে কেউ বাংলাদেশকে জ্বালানি পণ্য দিতে পারবে না।’

Be the first to comment on "বাংলাদেশকে আরো ‘তেল’ দিতে চায় ভারত"

Leave a comment

Your email address will not be published.


*