সীমান্তের নদীতে ‘বিশেষ সেন্সর’ বসাচ্ছে ভারত

ভারত ডেস্ক,বর্তমানকণ্ঠ ডটকম,সোমবার,২২জানুয়ারী ২০১৮: বাংলাদেশের সঙ্গে ভারতের প্রায় ৬১ কিলোমিটার নদীসীমান্ত পাহারা দিতে ভূমির তলদেশে ও পানির নিচে সেন্সর ব্যবস্থা (সনার) বসাচ্ছে ভারতীয় প্রশাসন। অনেকেই এই পথে সীমান্ত পাড়ি দিয়ে দেশটিতে নানা অবৈধ কর্মকাণ্ড করে বলে মনে করে তারা।

এক সংবাদ সম্মেলনে ভারতের সীমান্তরক্ষী বাহিনী বিএসএফ কর্মকর্তারা জানান, ‘বোল্ড কিউআইটি’ নামের একটি প্রকল্প হাতে নিয়েছেন তারা। এর মাধ্যমে বাংলাদেশ-ভারত নদীসীমান্তে সমন্বিত সীমান্ত নিরাপত্তা ব্যবস্থা ‘কম্প্রিহেনসিভ ইনটেগ্রেটেড বর্ডার ম্যানেজমেন্ট সিস্টেম’ স্থাপন করা হবে। এর সঙ্গে যুক্ত করা হবে বিভিন্ন সেন্সর।

এই ব্যবস্থা প্রতিমুহূর্তে স্থল ও জলসীমান্ত নিরাপত্তায় নজরদারি করবে। ভারতীয় কর্মকর্তাদের দাবি, এই সেন্সর তাদের নিরাপত্তা ব্যবস্থাকে ত্রুটিমুক্ত রাখবে। স্থল ও জলসীমান্ত, এমনকি পানি ও মাটির তলদেশে এবং আকাশেও নিরাপত্তার নিশ্চয়তা দেবে এই ব্যবস্থা।

বাংলাদেশের সঙ্গে ভারতের নদীসীমান্ত আছে মূলত ব্রহ্মপুত্র নদ হয়ে। আর সামান্য আছে গাধার নদী হয়ে। বিএসএফের মতে, প্রচলিত বেড়ার মাধ্যমে নদীসীমান্ত বন্ধ করা সম্ভব না। আর এই কারণেই পানির নিচে সোনার সেন্সর বসাচ্ছে তারা। সন্দেহজনক কিছু ধরা পড়লে এই সেন্সর বিএসএফের স্থানীয় তিনটি কমান্ড সেন্টার ও আসামের বর্মণ পাড়ার মাস্টার রুমে সংকেত পাঠাবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *