সড়ক দুর্ঘটনা রোধে প্রধানমন্ত্রীর ৫ নির্দেশনা

নিউজ ডেস্ক,বর্তমানকণ্ঠ ডটকম, সোমবার,২৫ জুন ২০১৮: দেশের বিভিন্ন অঞ্চলের সড়কগুলো যেন একেকটি মৃত্যুকূপ। প্রতিদিন এইসব সড়কে ঝরছে প্রাণ। সরকারের সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয়ে এ ব্যাপারে নানা পদক্ষেপের কথা বললেও বাস্তবতা ভিন্ন। সড়ক দুর্ঘটনায় মৃত্যুর মিছিল যেন কিছুতেই থামছে না।

এমন অবস্থায় সড়ক দুর্ঘটনা রোধ করতে চালকদের প্রশিক্ষণসহ ৫টি নির্দেশনা দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

সোমবার (২৫ জুন) সচিবালয়ে প্রধানমন্ত্রীর সভাপতিত্বে মন্ত্রিসভার নিয়মিত বৈঠকে এসব নির্দেশনা দেন তিনি।

বৈঠক শেষে মন্ত্রিপরিষদ সচিব মোহাম্মদ শফিউল আলম সাংবাদিকদের বৈঠকের বরাত দিয়ে এসব তথ্য জানান।

নির্দেশনা ৫টি হলো-
১. চালক ও হেলপারদের (সহকারী) প্রশিক্ষণ দিতে হবে।
২.দূরপাল্লার বাসযাত্রায় বিকল্প চালক রাখতে হবে, এক্ষেত্রে পাঁচ ঘণ্টা পর পর চালক পরিবর্তন করতে হবে।
৩.চালক ও যাত্রীদের সিটবেল্ট বাঁধা বাধ্যতামূলক করতে হবে।
৪.চালকদের জন্য মহাসড়কের পাশে বিশ্রামাগার রাখতে হবে।
৫.অবশ্যই সিগন্যাল মেনে চলতে হবে।

এসব ব্যাপারে বৈঠকে প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘আন্তর্জাতিক পর্যায়ে স্বীকৃত নিয়ম হচ্ছে, দূরের যাত্রায় একজন চালক একটানা পাঁচ ঘণ্টার বেশি গাড়ি চালাতে পারবেন না। বিকল্প চালক রাখতে হবে।’

শফিউল আলম সাংবাদিকদের বলেন, ‘ঈদের পর বেশ কিছু সড়ক দুর্ঘটনার প্রেক্ষাপটে প্রাণহানির ঘটনা নিয়ে বৈঠকে আলোচনা হয়। এছাড়া সভায় সার (ব্যবস্থাপনা) (সংশোধন) আইন-২০১৮-এর খসড়া অনুমোদন দেয়া হয়েছে। এতে নিবন্ধন ছাড়া সার উৎপাদন, বিক্রি ও বিপণনের সাজা বাড়ানো হয়েছে।’

তিনি জানান, এক্ষেত্রে বিদ্যমান আইনে ৬ মাস কারাদণ্ড ও ৩০ হাজার টাকা অর্থদণ্ডের বিধান রয়েছে। এখন প্রস্তাবিত আইনে ২ বছরের কারাদণ্ড ও ৫ লাখ টাকা অর্থদণ্ডের বিধান রাখা হয়েছে। একই সঙ্গে সভায় জাতীয় দক্ষতা উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ আইন ২০১৮-এর খসড়া অনুমোদন দেয়া হয়।

বৈঠকের বরাত দিয়ে মন্ত্রিপরিষদ সচিব আরও বলেন, সড়ক দুর্ঘটনা রোধে প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনাসমূহ তদারকি করবেন সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের, স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল ও নৌপরিবহনমন্ত্রী শাজাহান খান।

bknews2010

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *