নেত্রকোণা -২ আসনে আওয়ামী লীগের প্রার্থী মুক্তিযোদ্ধা আবু আক্কাস

শ্রী অরবিন্দধর, বর্তমানকন্ঠ ডটকমঃ
আসন্ন একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে স্বচ্ছতার আলোকে নেত্রকোণা -২ আসনে আওয়ামীলীগের মনোনয়ন প্রত্যাশীদের মধ্যে পরিবার, সমাজ, রাজনৈতিক, আধ্যাত্বিক চেতনায় সেবা মূলক কর্মকান্ডে সমালোচনার উর্ধ্বে রয়েছেন বীর মুক্তিযোদ্ধা, প্রাবন্ধিক, অসাম্প্রদায়িক মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের সন্তান আবু আক্কাস আহমেদ।
মানব কল্যাণ প্রয়াসে তিনি সাংসদ হতে চান সকল ধর্মের সকল জাতির মানুষকে ভালবেসে। যার জীবনের অলংকার হলো মুক্তিযুদ্ধ, স্বাধীনতার অহংবোধ হলো জাতির জনক বঙ্গবন্ধুর আদর্শ।
তিনি ছাত্র রাজনীতি থেকে মহান মুক্তিযুদ্ধে অংশ নিয়ে, সমাজকর্ম থেকে রাজনীতিতে অংশগ্রহন, সংস্কৃতি সংবেদনশীলতা থেকে সাহিত্যকর্মে পদচারণ, এবং সদা হাসিখুশী, বিনয়ী, সুশিক্ষিত, সাহষী এমন একজন বীর মুক্তিযোদ্ধার নাম আবু আক্কাস আহমেদ। যার পরিবার জেলায় ‘মুক্তিযোদ্ধা পরিবার ‘ হিসেবে পরিচিতির সাক্ষ বহন করে আসছে।
মুক্তিযুদ্ধের সংগঠক ও মুক্তিযোদ্ধা মরহুমা হরমুজান নেছা তালুকদার তাঁর মা। তিন ভাই মুক্তিযোদ্ধা মরহুম মুক্তিযোদ্ধা আবু সিদ্দিক আহমেদ, তিনি ছিলেন নেত্রকোণা জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সহ-সভাপতি ও কে গাতি ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান। মুক্তিযোদ্ধা আবু ওয়ারেস আহমেদ এবং যুদ্ধাহত মুক্তিযোদ্ধা গোলাম মোস্তাফা সাবেক জেলা মুক্তিযোদ্ধা ইউনিট কমান্ডার ছিলেন।
বাবার নাম মরহুম সৈয়দ আহমেদ তালুদার জেলা সদর উপজেলা কে, গাতি ইউনিয়নের নাড়িয়াপাড়া গ্রামের বিশিষ্ট সম্পদশালী ও সম্ভ্রান্ত পরিবারের লোক হিসেবে সর্বমহলে পরিচিত । তাই ভাল পিতা মাতার সন্তান ভালো সুন্দর মনের মানুষ মনোনয়ন প্রার্থী আবু আক্কাস।
আবু আক্কাস ছাত্রজীবনে বাংলাদেশ ছাত্রলীগ ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় শাখার সহ-সভাপতি ছিলেন। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে সমাজ বিজ্ঞান বিভাগে অনার্স সহ এম এস, এস, ডিগ্রী লাভ করেন। মুক্তিযুদ্ধে ১১ নং সেক্টরের ৪নং টাইগার কম্পানীর ইঞ্জিনিয়ারিং গ্রুপ কমান্ডার এর দায়িত্ব পালন করেন।
নিজ এলাকার মুক্তিযুদ্ধ স্মৃতিপাঠাগার, মাদ্রাসা এতিমখানা, প্রাইমারী বিদ্যালয়ের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতির দায়িত্ববান হিসেবে কাজ করে যাচ্ছেন আবু আক্কাস আহমেদ। বাংলা একাডেমী, ঢাবি অ্যালমনাই এসোসিয়েশন এবং বাংলাদেশ রেডক্রিসেন্ট সোসাইটির আজীবন সদস্য আবু আক্কাস আহমেদ। এছাড়া একই পরিবারে মা সহ ৪ ভাই মুক্তিযুদ্ধে অংশ গ্রহন মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাসে স্মরনীয় ঘটনাকাল। পাক হানাদার বাহিনীকে পরাস্থ করতে আবু আক্ কাসের নেতৃত্বে ঠাকুরাকোনা ব্রীজ ধ্বংসের দুঃসাহসিক অভিযানটি আজো জেলাবাসীর মুখে মুখে আলোচিত তিনি।
তিনি লেখক হিসেবে সাহিত্য জগতে অন্যতম “স্বাধীনতার ঘোষনা ” ” ইতিহাস বিকৃতির নির্লজ্জ প্রয়াস ” ও “হৃদয়ে মুক্তিযুদ্ধ ” বই গুলি দু ‘ যুগ আগে পাঠক মহলে সফলতার পুরস্কার লাভ করে।
আবু আক্কাস আহমেদ নির্বাচনী প্রচারণায় -গনসংযোগ করে ভোটারগনের অন্তরে রয়েছে এবং সর্বসাধারণ পরম প্রভুর কাছে দু ‘ হাত তোলে কায়মনোবাক্যে প্রার্থনা জানাচ্ছে যেন শেখ হাসিনার সু-দৃষ্টিতে নৌকার জয় লক্ষ্যে তিনিকে মনোনয়ন প্রদান করেন। মনোনয়ন পাবার আশায় গ্রামে গঞ্জে ভোটারগন নিজ উদ্যোগে নৌকার জয় নিশ্চিত করতে কাজ করে যাচ্ছে আবু আক্কাস আহমেদের ভক্তরা।
বর্তমানকণ্ঠ সাথে আলাপকালে বলেন, জাতির জনক বঙ্গবন্ধুর সোনারবাংলা বাস্তাবায়নে প্রধান মন্ত্রী স্বর্ণকন্যা বিশ্বনেত্রী শেখহাসিনা স্বদেশ উন্নয়নের ধারাবাহিকতা অক্ষুণ্ণ রাখতে নেত্রকোণা সদর বারহাট্টা সমন্নয়ে নেত্রকোণা-২ আসনে নৌকা প্রতীক নিয়ে একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে যোগ্যপ্রার্থী হয়ে সাংসদ হয়ে মানব কল্যাণে আত্মনিয়োগ করতে চান। তাঁর জীবনচলায় চাওয়া পাওয়ার আর কিছু নেই। তাই তিনি দীর্ঘদিন ধরে তাঁর নির্বাচনী এলাকায় প্রচার প্রচারণা চালিয়ে এতিম খানা , মাদ্রাসা, বিদ্যালয়, জেলার ১৯ টি ইউপির হাট বাজারে গনসংযোগ উঠান বৈঠক করে যাচ্ছেন। এরই ধারাবাহিতায় সদর বারহাট্টা উপজেলার প্রায় শতাধিক পূজা মন্ডপে নৌকার বিজয় নিশ্চিত করতে সাংবাদিক ও তৃনমূল আওয়ামী লীগ নেতা কর্মীদের নিয়ে নৌকা মার্কায় ভোট চেয়ে নির্বাচনী প্রচার প্রচারণা চালিয়ে গন সংযোগ করে যাচ্ছেন।
নির্বাচনে মনোনয়ন প্রত্যাশী হিসেবে সর্বদিক বিতর্কের উর্ধ্বে উঠে জনগনের সেবা করা ছাড়া জীবনে আর কোন আকাংখা নেই বলে জানান তিনি। তাই তৃনমূলের নেতা কর্মী সহ সর্বমহলের মানুষ পছন্দকরে তাঁকে বলে জানান তিনি।
স্রষ্টার প্রতি ভরসা রেখে তিনি বলেন আমি আশাবাদী আওয়ামীলীগ থেকে নেত্রকোণা-২ আসনে মনোনয়ন পাব। যদি সাংসদ হতে পারি
শেখহাসিনার স্বদেশ উন্নয়নের একজন অতন্ত্রপ্রহরী হব আমি।।

বর্তমানকণ্ঠ ডটকম

http://www.bartamankantho.com

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *