খালেদা জিয়ার মুক্তির দাবিতে রিজভীর নেতৃত্বে বিক্ষোভ

ডেস্ক রিপোর্ট | বর্তমানকন্ঠ ডটকম: কারাবন্দি ও অসুস্থ দলের চেয়ারপারন বেগম খালেদা জিয়ার নিঃশর্ত মুক্তি ও সুচিকিৎসার দাবিতে বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব অ্যাডভোকেট রুহুল কবির রিজভীর নেতৃত্বে বিক্ষোভ মিছিল করেছেন জাতীয়তাবাদী স্বেচ্ছাসেবক দলের নেতাকর্মীরা।

শুক্রবার (১৯ এপ্রিল) দুপুর ২টায় রাজধানীর নয়াপল্টনস্থ বিএনপি কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে থেকে শুরু হয়ে নাইটিঙ্গেল মোড় ঘুরে আবারও কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের নিকট এসে শেষ হয়।

মিছিলে স্বেচ্ছাসেবক দলের ঢাকা মহানগরের শতাধিক নেতাকর্মীরা অংশ নেন। এসময় নেতাকর্মীরা কারাবন্দি বেগম খালেদা জিয়া ও ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানের নামে বিভিন্ন স্লোগান দেন।

মিছিলে স্বেচ্ছাসেবক দল কেন্দ্রীয় সভাপতি শফিউল বারী বাবু, সাধারণ সম্পাদক আব্দুল কাদির ভুইয়া জুয়েল, সহ-সভাপতি গোলাম সারোয়ার, সাংগঠনিক সম্পাদক মো. ইয়াসিন আলী, সিনিয়র যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক সাইফুল ইসলাম ফিরোজ, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক সাদরেজ জামান, উত্তরের সভাপতি ফখরুল ইসলাম রবিন, সাধারণ সম্পাদক কাজী রেজওয়ান হোসেন রিয়াজ, দক্ষিণের সাধারণ সম্পাদক নজরুল ইসলাম, সিনিয়র সহ-সভাপতি রফিক হাওলাদার, উত্তরের সিনিয়র সহ-সভাপতি হারুন অর রশীদ, সাবেক কেন্দ্রীয় যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আনু মো. শামীম, ওয়াহিদ বিন ইমতিয়াজ বকুল, ধর্ম সম্পাদক জাকির হোসেন মিজান, ঢাকা মহানগর দক্ষিণের সাবেক যুগ্ম আহবায়ক শফিউদ্দিন সেন্টু, উত্তরের বর্তমান সাংগঠনিক সম্পাদক সাইদুর রহমান সাইদুল প্রমুখ অংশগ্রহণ করেন।

মিছিল শেষে এক সংক্ষিপ্ত সমাবেশে রুহুল কবির রিজভী বলেন, ‘দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়ার অসুস্থতার মাত্রাকে তীব্রতর করে জীবন বিপন্ন করার মাধ্যমে রাজনীতি থেকে দুরে সরিয়ে দিতে চান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এটি নিঃসন্দেহে শেখ হাসিনার গভীর মাস্টারপ্ল্যান। শেখ হাসিনার একটাই চিন্তা বেগম জিয়াকে রাজনীতি থেকে দুরে সরাতে না পারলে, বেগম জিয়াকে তিলে তিলে নিঃশেষ করতে না পারলে গদি রক্ষা করা যাবে না।’

বিএনপি স্বাধীনতায় বিশ্বাস করে না বলেই মুজিব নগর দিবস পালন করে না- আওয়ামী লীগের এক নেতা এমন বক্তব্যের জবাবে রিজভী বলেন, ‘৭২ থেকে ‘৭৫ আওয়ামী লীগের কোন নেতাই মুজিবনগরে যায়নি, কারণ সেদিন মেহেরপুরে যে সরকার গঠিত হয়েছিল তার প্রধান ছিলেন তাজউদ্দিন আহমেদ, সেই দিবসে বিশ্বাস করলে তো আওয়ামী লীগের অস্তিত্ব থাকে না। আর এজন্যই বর্তমান প্রধানমন্ত্রী মেহেরপুরের মুজিবনগরে কোনদিনও যাননি।’

মিছিল শেষে উত্তরের সাধারণ সম্পাদক গাজী রেজওয়ান হোসেন রিয়াজের সঞ্চালনায় আরও বক্তব্য রাখেন স্বেচ্ছাসেবক দলের সভাপতি শফিউল বারী বাবু, সাধারণ সম্পাদক আব্দুল কাদির ভুইয়া জুয়েল, উত্তরের সভাপতি ফখরুল ইসলাম রবিন প্রমুখ।

বর্তমানকণ্ঠ ডটকম

http://www.bartamankantho.com

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *