একজন ট্রাকচালক ৫৪ সন্তানের বাবা তিনি

নিউজ ডেস্ক,বর্তমানকণ্ঠ ডটকম: জনসংখ্যার ভারে পৃথিবীর বিভিন্ন দেশ স্থবির হয়ে পড়েছে। জনসংখ্যা রোধে বিভিন্ন পদক্ষেপ নেয়া হচ্ছে। আধুনিক বিশ্বে এক থেকে দুই সন্তানের বেশি কেউ নিতে আগ্রহ দেখান না। কিন্তু রীতিমতে প্রস্তুতি নিয়ে তিনি ৫৪ সন্তানের বাবা হয়েছেন। তার স্ত্রী আছেন ছয়জন। আব্দুল মজিদ মেঙ্গাল নামের ৭০ বছর বয়সী ওই ব্যক্তির বাড়ি পাকিস্তানে।

পেশায় তিনি একজন ট্রাকচালক। মজিদ ১৮ বছর বয়সে প্রথম বিয়ে করেন। এরপর একে একে আরও পাঁচটি বিয়ে করেন তিনি।  

ডেইলি মিররকে দেওয়া এক সাক্ষাতকারে আব্দুল মজিদ মেঙ্গাল বলেন, যৌনমিলনের চাহিদার কারণে তিনি একাধিক বিয়ে করেছেন!

৭ রুমের একটি বাড়িতে বউ ও সন্তানদের নিয়ে বাস করেন আব্দুল মজিদ। বাচ্চারা তাদের নিজেদের মায়েদের সঙ্গে ঘুমায়। পরিবারের একমাত্র ছেলে উপার্জনক্ষম হওয়ায় বৃদ্ধ বয়সে এসে ৭০ বছর বয়সে এসেও তাকেই মূলত পরিবারের চাহিদাগুলো মেটানোর জন্য সংগ্রাম করতে হচ্ছে।  

৬ বউ ও ৫৪ সন্তানের মধ্যে অর্থের অভাবে চিকিৎসা না করাতে পারায় তার দুই স্ত্রী এবং ১২টি সন্তান মারা গেছেন। বর্তমানে তার ২২টি ছেলে ও ২০টি মেয়ে আছে।

পাকিস্তানে মুসলিম পুরুষদের একসঙ্গে ৪ জন স্ত্রী রাখার বিধান রয়েছে। এতে কোনো আইনগত বাধা নেই। তবে একাধিক বিয়ে করতে প্রথম স্ত্রীর অনুমতি নিতে হয়। এবং একটি সালিশি পরিষদের অনুমোদন লাগে।

আব্দুল মজিদের সন্তানদের বেশিরভাগেরই বয়স ১০ এর নিচে। অভাবের সংসারে তিনি সাধারণত স্ত্রী-সন্তানদের নিয়ে প্রতিবেলায় ডাল, ঢেড়শ এবং সবজির সঙ্গে ১০০টি রুটি খান। আর সস্তায় কাপড় কিনে তাদের সকলের জন্য পোশাক বানানো হয়।

FacebookTwitterDiggStumbleuponRedditLinkedinPinterest
Pin It
এই পাতার আরো খবর -