বাহুমূলের কালো রঙ দূর করার সহজ উপায়

লাইফস্টাইল ডেস্ক,বর্তমানকণ্ঠ ডটকম: অনেক সময় নিয়মিত ওয়্যাক্সিং বা শেভিং করার ফলে আন্ডার আর্মস বা বাহুমূলের অংশ কালো হয়ে যায়। এটা দেখতে খুব বাজে লাগে। রইলো ছয়টা ঘরোয়া উপায়ের হদিশ যার দ্বারা খুব সহজেই এই কালো আন্ডার আর্মস ফর্সা করা যায়।

১) আলু : আলুতে উপস্থিত অ্যাসিড প্রাকৃতিক ব্লিচিং এজেন্টের কাজ করে। এর জন্য সরু করে আলু কেটে বগলের তলায় রাখুন। ১৫-২০ মিনিট পর শুকিয়ে গেলে হাল্কা গরম জলে ধুয়ে ফেলুন। আরো ভালো ফল পাওয়ার জন্য দিনে দুবার করে আলু লাগান।

২) শসা : আলুর মতোই শসাতেও ন্যাচরাল ব্লিচিং প্রপার্টি আছে, যা সহজেই ত্বকের দাগ হাল্কা করতে পারে। এর জন্য এক ফালি শসা পাতলা করে কেটে লাগাতে পারেন। বা শসা গ্রেট করে অল্প হলুদ গুঁড়ো এবং লেবুর রস মিশিয়ে লাগাতে পারেন। শুকিয়ে গেলে হাল্কা গরম জলে ধুয়ে নিতে হবে।

৩) লেবু : লেবুতে অ্যান্টি ব্যাকটেরিয়াল এবং অ্যান্টি সেপটিক প্রপার্টি থাকার কারণে বিভিন্ন স্কিন রিলেটেড প্রবলেমের জন্য ব্যবহার করা হয়। লেবুর রস কালো অংশে লাগিয়ে রাখুন। ১০ মিনিট রাখার পর ধুয়ে ফেলুন। আরো ভালো ফল পাওয়ার জন্য লেবুর রসে খানিকটা চিনি মিশিয়ে নিন।

এছাড়াও লেবুর রসে হলুদ, মধু বা টক দই ও মেশাতে পারেন। সপ্তাহে অন্তত একবার লাগান।

৪) বেকিং সোডা : বেকিং সোডা দিয়ে এক্সফলিয়েটিং স্ক্রাব বানানো যেতে পারে, যার সাহায্যে খুব সহজেই কালো দাগ হাল্কা করা যায়। এর জন্য বেকিং সোডা আর জল মিশিয়ে একটা পেস্ট বানান। এই পেস্ট দিয়ে বাহুমূল হাল্কা হাতে ম্যাসাজ করুন। কিছুক্ষণ রেখে ঠান্ডা জল দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। সপ্তাহে চার-পাঁচবার এই পেস্ট দিয়ে এক্সফলিয়েট করুন।

৫) নারিকেল তেল : আর একটা ভালো অপশন হতে পারে নারিকেল তেল। নারিকেল তেলে ভিটামিন ই আছে যা আন্ডার আমর্সের কালো রং হাল্কা করতে সাহায্য করবে।  এছাড়াও নারিকেল তেল প্রাকৃতিক ডিওডোরেন্টের কাজ করবে। এর জন্য নারিকেল তেল নিয়ে কালো দাগের ওপর ম্যাসাজ করুন। ১০-১৫ মিনিট রেখে হল্কা গরম জল দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। দিনে ২-তিনবার ব্যবহার করুন যতক্ষণ না কালো অংশ ফর্সা হচ্ছে।

৬) দুধ : দুধে উপস্থিত ভিটামিন এবং ফ্যাটি অ্যাসিড আন্ডার আর্ম ডার্কেনিং কমাতে পারে। এছাড়া ত্বকও আগের থেকে অনেক বেশি কোমল এবং উজ্জ্বল হবে। এর জন্য দু টেবিল চামচ ফুল ক্রিম দুধের সঙ্গে ২ টেবিল চামচ ময়দা মেশান। একটা গাঢ় পেস্ট বানান। বাহুমূলে লাগিয়ে ১৫-২০ মিনিট রেখে দিন। ঠান্ডা জলে ধুয়ে ফেলুন। সপ্তাহে চার বার এই পদ্ধতি অনুসরণ করুন।

দুধের সঙ্গে মধু, কেশর মিশিয়ে সেটাও লাগাতে পারেন।

এছাড়াও কমলা লেবুর খোসা শুকিয়ে গুঁড়ো করে তা জলের সঙ্গে মিশিয়ে পেস্ট বানিয়ে লাগাতে পারেন। ভালো ফল পাবেন। এছাড়াও নিয়মিত ভিনিগার, বেসন আর চন্দন পেস্ট ও লাগাতে পারেন।

তবে মনে রাখতে হবে অনেকসময় মেডিকেল কন্ডিশনের জন্য যেমন ইনসুলিন রেসিজটেন্স, ওবেসিটি  হর্মোনাল ডিস অর্ডার এর কারণে আন্ডার আর্মস কালো হয়ে যেতে পারে। সেক্ষেত্রে ডাক্তারের পরামর্শ নিন।

FacebookTwitterDiggStumbleuponRedditLinkedinPinterest
Pin It

 

This Category Latest news