মুসলমানদের উপর কালো দাগ দেয়ার চেষ্টা হচ্ছে : স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

নিজস্ব প্রতিবেদক,বর্তমানকণ্ঠ ডটকম: জঙ্গিবাদ বিস্তার রোধে মুসলিমদের এগিয়ে আসার আহ্বান জানিয়ে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল বলেছেন, ‘প্রথমদিকে কওমি মাদ্রাসার ছাত্রদের সামনে এনে জঙ্গিবাদ তৎপরতা করা হয়েছে। এরপর ভার্সিটির ছাত্রদের, স্কুল-কলেজের ছাত্রদের এবং ইংলিশ মিডিয়ামের ছাত্রদের নিয়ে জঙ্গি তৎপরতা করা হয়। তখন আমি বলেছিলাম, কওমি মাদ্রাসার ছাত্ররা এসব কাজ করতে পারে না। কারণ তারা ইসলাম পড়ে।’

শনিবার (১০ জুন) জাতীয় প্রেসক্লাবের কনফারেন্স লাউঞ্জে ‘আওয়ার ইসলাম টুয়েন্টিফোর ডটকম’র প্রথম বর্ষপূর্তি উদযাপন অনুষ্ঠানে তিনি এসব কথা বলেন।

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ‘শুধু দেশকে নয় মুসলমানদের উপর কালো দাগ দেয়ার চেষ্টা করছে। আপনাদের (আলেম) কাজ আপনাদের করতে হবে। আপনাদের বসে থাকলে চলবে না। ইসলামের প্রচার করতে হবে। ইসলাম কি বলে তার প্রচার করতে হবে।’

আওয়ার ইসলামকে স্বাগতম জানিয়ে তিনি বলেন, ‘দেরিতে হলেও আপনারা শুরু করেছেন। তাই আপনারা (আলেম) কি চিন্তা করছেন তা প্রকাশ করুন। আমাদের কথা প্রকাশ করুন। জাতীয় সংগীত মাদ্রাসার শিশুরা ধারণ করতে পারলে, তারা আরও বড় আলেম হতে পারতো। ’

একই অনুষ্ঠানে জাতীয় পার্টির প্রেসিডিয়াম সদস্য কাজী ফিরোজ রশীদ বলেন, ‘যাদের ধর্ম নাই, তারাই হেফাজতকে গালাগালি হিসেবে ব্যবহার করে। ’

তিনি বলেন, ‘নাস্তিকদের একদিন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী পাহারা দিয়ে না রাখলে পায়ের নিচে চলে যেতো। ভাস্কর্য, মূর্তি কথা বলতে পারে না। মানচিত্রের সামনে তাহলে কেন মূর্তি বসানো। যে মূর্তি নড়াচড়া করতে পারে না, সেই মূর্তির মুখ দেখে কি বিচার হবে। ’

‘যারা কোন ধর্ম পালন করে না তারা আমার ধর্ম নিয়ে কথা বলে। আর তার জবাব দিলে জঙ্গি হয়ে যাব? এমন প্রশ্ন তুলে তিনি বলেন, এই সরকার আছে তাই নাস্তিকেরা টিকে আছে, না হলে চেতনা বুড়িগঙ্গায় যেত ’ বলেন ফিরোজ রশীদ।

অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি র আ ম উবায়দুল মুক্তাদির চৌধুরী। বক্তব্য রাখেন অনলাইন পোর্টালের সম্পাদক হুমায়ুন আইয়ুব, রকমারি ডটকমের পরিচালক হাসানুল হক, এশিয়ান ইউনিভার্সিটির প্রতিষ্ঠাতা উপাচার্য প্রফেসর আবুল হাসান মুহাম্মদ প্রমুখ।

FacebookTwitterDiggStumbleuponRedditLinkedinPinterest
Pin It
এই পাতার আরো খবর -