শুক্রবার, ১৪ জুন ২০২৪, ০১:৩৮ পূর্বাহ্ন

শিরোনাম-
গাজায় ইসরায়েলি হামলায় নিহত আরও ৩৮ ফিলিস্তিনি জেলেনস্কির হোমটাউনে রাশিয়ার ক্ষেপণাস্ত্র হামলায় নিহত ৯ বিমান দুর্ঘটনায় ভাইস প্রেসিডেন্ট নিহত: মালাবিতে ২১ দিনের শোক সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান হত্যা: বিচারের দাবীতে টায়ারে আগুন জ্বালিয়ে মহাসড়ক অবরোধ মালয়েশিয়ার শ্রমবাজার অস্থিরতাকারীদের বিরুদ্ধে প্রধানমন্ত্রীর হুঁশিয়ারি নাগরিক সমস্যা সমাধানে সরকার ও নাগরিকের অংশীদারিত্ব প্রয়োজন: তথ্য প্রতিমন্ত্রী বিনা কর্তনে সেন্সর ছাড়পত্র পেল ‘মুনাফিক’ আমাদের দিয়ে রান্না করাতো জলদস্যুরা, খেয়ে ফেলতো সবই যাতায়াতের দুর্ঘটনায় ক্ষতিপূরণ পাবে পোশাক শ্রমিকরা আলোচিত সংগীতশিল্পীসহ নিহত ২, পালিয়েও শেষ রক্ষা হয়নি বাসচালকের

ফ্রান্সে বিএনপির দ্বিতীয় বিক্ষোভ সমাবেশ!

সৈয়দ মুন্তাছির রিমন, ফ্রান্স । / ১২৬ পাঠক
শুক্রবার, ১৪ জুন ২০২৪, ০১:৩৮ পূর্বাহ্ন

‘যেখানে শেখ হাসিনা সেখানেই বিক্ষোভ‘শ্লোগান বা মন্ত্রে দীক্ষিত হয়ে প্রবাসের বিভিন্ন দেশে বাংলাদেশী কমিউনিটির একাংশ বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল (বিএনপি)‘র নেতারা প্রতিবাদ ও প্রতিরোধ কর্মসূচি পালন করেছে। এরই ধারাবাহিকতায় বাংলাদেশ প্রধানমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনার ফ্রান্সে সফরকে কেন্দ্র করে দ্বিতীয় দিনের সমাবেশ শুক্রবার স্থানীয় সময় দুপুর ২ঘটিকায় প্যারিসের ঐতিহাসিক রিপাবলিক চত্বরে ফ্রান্সে বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল (বিএনপি) শাখা কর্তৃক বিক্ষোভ সমাবেশ অনুষ্টান সফল ও শান্তিপূর্ণভাবে সমাপ্ত হয়েছে।

ফ্রান্স বিএনপির সভাপতি সৈয়দ সাইফুর রহমানের সভাপতিত্বে ইউরোপের বিভিন্ন দেশ থেকে আগত জাতীয়তাবাদী দল বিএনপি, যুবদল, ছাত্রদল ও তার ভ্রাতৃপ্রতিম সংগঠনের নেতা কর্মীরা বর্তমান সরকার ও ক্ষমতাসীন দল আওয়ামী লীগের বিরুদ্ধে মিছিলে মিছিলে কম্পিত করে তোলে পুরো এলাকা।

এসময় গো বেক, গো বেক শেখ হাসিনা গো বেক, স্বৈরাচার শেখ হাসিনা, ভোট চোর শেখ হাসিনা গো বেক, গো বেক, আর নয় শেখ হাসিনা গো বেক গো বেক শ্লোগানে প্রতিবাদ জানায়। এতে বক্তারা বলেন আওয়ামীলীগ সরকার হলো মধ্যরাতের সরকার। এই দেশ একটি পুলিশী রাষ্ট্র। আজ বাংলাদেশ একটি কারাগারে পরিণত হয়েছে। এই সরকার তাবেদার রাষ্ট্র কায়েম করেছে। আমরা জাতি সংঘের পরিচালনায় সুষ্ট জাতীয় সংসদ নির্বাচন চাই।

আওয়ামী লীগ সরকার শুধু গণতন্ত্রকে নয়, মানুষকেও হত্যা করছে। ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগ মানুষ হত্যা করে দেশে রাজতন্ত্র কায়েম করার চেষ্টা করছে। দেশে কথা বলার কোন বাক স্বাধীনতা নেই। তবে ফ্রান্সে কথা বলার স্বাধীনতা আছে, মত প্রকাশের স্বাধীনতা আছে। যারা আমাদের ফ্রান্সের বিক্ষোভ সমাবেশের বিরুদ্ধে হুশিয়ারি দিয়ে ছিলেন তাদের বলছি, এটি আপনাদের অবৈধ ফ্যাসিবাদী রাষ্ট্র নয়। ফ্রান্স মানবতার রাজধানী। এখানে মত প্রকাশের স্বাধীনতা সবার আছে। বাংলাদেশের মতো রাষ্টে অধিকার কেড়ে নেয়া হয় না।

তারা আরো বলেন বাংলাদেশের স্বাধীনতায় শুকুনের চোখ পড়েছে। তাই এই জাতিকে উদ্ধারকল্পে সবাইকে একত্রিত হতে হবে। আমরা সিপাসী বিদ্রোহীর মাধ্যমে যেমন বহুদলীয় গণতন্ত্র রক্ষা করেছি আজ নবযুদ্ধে তারেক রহমানের নেতৃত্বে সবাইকে একই ভাবে অংগ্রহন করতে হবে। যতদিন অবৈধ শেখ হাসিনার সরকার ক্ষমতায় থাকবে ততদিন বিএনপির আন্দোলন ও সংগ্রাম চলবে।

সাধারন সম্পাদক এম এ তাহেরের পরিচালনায় প্রধান অতিথী হিসেবে বক্তব্য রাখেন বিএনপির আন্তর্জাতিক বিষয়ক সম্পাদক মাহিদুর রহমান সায়েম, বিশেষ অতিথী বিএনপি কেন্দ্রীয় সদস্য আব্দুল মালেক, যুক্তরাজ্য বিএনপির সভাপতি এম এ মালেক, ইতালী বিএনপি সভাপতি হাজী আব্দুর রাজ্জাক, ফ্রান্স, সহসভাপতি এম এ রহিম, মাহবুব আলম রাঙ্গা, রুহুল আমীন, আবদুল রশিদ পাটওয়ারী, সিনিয়র যুগ্ম সম্পাদক কবির পাটওয়ারী, যুগ্ম সম্পাদক এমএ কায়ছার, রেজাউল করিম, সৈয়দ রেজাউজ জামান, ভারপ্রাপ্ত সাংগঠনিক সম্পাদক আজিজুর রহমান, বাণিজ্য ও বিনিয়োগ সম্পাদক ফারুক আহমেদ, শিক্ষা বিষয়ক সম্পাদক এম এ মালেক, প্রচার সম্পাদক শ্যামল দাস সানী, ফ্রান্স বিএনপি নেতা ইলিয়াস কাজ ও যুবদলের নেতা-কর্মী প্রমূখ। এই বিক্ষোভ সমাবেশে ইউরোপের ইউকে, গ্রীস, ইতালী, জার্মান, আয়ারল্যান্ড, পর্তুগাল, স্পেন, নেদারল্যান্ড, বিএনপি ও এর অঙ্গ-সংগঠনের নেতারা উপস্থিত ছিলেন।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *